চবিতে ছাত্রলীগের ২ গ্রুপের সংঘর্ষ, হলে তল্লাশি চালিয়ে দেশীয় অস্ত্রসহ আটক ৫

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে (চবি) ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষের জেরে বিশ্ববিদ্যালয়ের শাহ আমানত এবং শাহ জালাল হলে অভিযান চালিয়েছে প্রশাসন। এ সময় কয়েকটা রামদাসহ বেশকিছু লাঠিসোঁটা ও স্টাম্প উদ্ধার করা হয়েছে।

শুক্রবার (২২ সেপ্টেম্বর) রাতের ঘণ্টাব্যাপী এ অভিযানে পাঁচ বহিরাগতকে আটক করেছে পুলিশ।

এর আগে বৃহস্পতিবার ও শুক্রবার দুই দফায় সংঘর্ষে জড়ায় শাখা ছাত্রলীগের বগিভিত্তিক দুটি গ্রুপ ‘সিএফসি’ ও ‘সিক্সটি নাইনে’র কর্মীরা। এতে উভয় পক্ষের অন্তত ১০ জন আহত হয়।

শিক্ষার্থীরা জানায়, শাহ আমানত হলে শাখা ছাত্রলীগের সহ সভাপতি সাদাফ খান নেতৃত্বাধীন গ্রুপ সিএফসি এবং শাহ জালাল হলে সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন টিপুর অনুসারী সিক্সটি নাইন গ্রুপের আধিপত্য রয়েছে।

এছাড়া আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে গতরাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের এক নম্বর গেট এলাকায় সংঘর্ষে জড়ায় ছাত্রলীগের সভাপতি রেজাউল হক রুবেল এবং যুগ্ম সম্পাদক মো. ইলিয়াসের অনুসারীরা।

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. নূরুল আজিম সিকদার বলেন, গতকালের ঘটনার জের ধরে আজও ছাত্রলীগের দুই গ্রুপ সংঘর্ষে জড়িয়েছিল। তাই পুলিশের সহযোগিতায় হলে অভিযান চালানো হয়েছে। অভিযানে কিছু লাঠি ও দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে এবং পাঁচ জনকে আটক করা হয়েছে। আটককৃত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে পুলিশ প্রসাশন ব্যবস্থা নেবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *